সেরা ফ্রি ক্লাউড স্টোরেজ সার্ভিস প্রোভাইডারের তালিকা

আপনি কি আপনার ফাইল অনলাইনে সংরক্ষণ করতে চান? কিন্তু আপনি জানেন না কোন ক্লাউড স্টোরেজ সার্ভিসটি বেছে নেবেন? আজকের আর্টিকেলে আমরা আপনাদের সাথে বর্তমানের সেরা ফ্রি ক্লাউড স্টোরেজ সার্ভিস প্রোভাইডারের তালিকা শেয়ার করব।

ক্লাউড কম্পিউটিংয়ের একটি মৌলিক বৈশিষ্ট্য হল, ডেটা এবং অন্যান্য ফাইলগুলি অনলাইনে সঞ্চয় করার ক্ষমতা এবং সেগুলি যে কোনও জায়গা থেকে ওপেন করার সুবিধা। একটি ইন্টারনেট সংযোগের মাধ্যমে, আপনি আপনার প্রয়োজনীয় সবকিছু সংরক্ষণ করতে পারেন। 

ড্রপবক্স, গুগল ড্রাইভ এবং ওয়ানড্রাইভের মতো ডেটা সংরক্ষণের জন্য বেশ কয়েকটি জনপ্রিয় পরিষেবা ব্যবহার করা হয়। প্রতিটি ক্লাউড স্টোরেজ প্ল্যাটফর্মের নিজস্ব বৈশিষ্ট্য এবং দুর্বলতা রয়েছে। তবে সঠিক ক্লাউড স্টোরেজ নির্বাচন করা অনেকের জন্য একটি কঠিন সিদ্ধান্ত হতে পারে।

আপনি যদি নিশ্চিত না হন, তাহলে ক্লাউড স্টোরেজ পরিষেবার নিম্নলিখিত তালিকা আপনাকে আপনার সিদ্ধান্ত নিতে সাহায্য করতে পারে।

ক্লাউড স্টোরেজ কি

ক্লাউড স্টোরেজ হল আপনার কম্পিউটারের হার্ডডিস্কের পরিবর্তে আপনার ডেটা অনলাইনে সংরক্ষণ করার একটি পদ্ধতি।অন্যদের সাথে ডকুমেন্ট, স্প্রেডশীট, প্রেজেন্টেশন, ফটোগ্রাফ, সাউন্ড, ভিডিও ইত্যাদি অ্যাক্সেস, পরিবর্তন এবং বিনিময় করতে ক্লাউড স্টোরেজ খুব ভাল একটি অপশন। অনলাইন স্টোরেজ পরিষেবা প্রদানকারীরা আপনার কম্পিউটারের হার্ডডিস্কে কোন তথ্য সংরক্ষণ করে না। ক্লাউড স্টোরেজ টুলস আপনাকে যে কোনো ডিভাইস থেকে আপনার ডেটা ডাউনলোড করতে দেয়।

সহজ ভাবে বলতে গেলে ক্লাউড স্টোরেজ এমন একটি অনলাইন সার্ভিস যার মাধ্যমে ব্যবহারকারী তাদের প্রয়োজনীয় ফাইল গুলো নিরাপদে অনলাইনে সংরক্ষণ করতে পারে । এতে স্টোর করা ফাইল গুলো উচ্চক্ষমতা সম্পন্ন কম্পিউটারের হার্ড ডিস্ক জমা করা হয়ে থাকে এবং সেই সকল কম্পিউটার কে আমরা সার্ভার বা সার্ভার কম্পিউটার বলে থাকি ।

যে সব কোম্পানি এই ক্লাউড স্টোরেজ সার্ভিস প্রদান করে থাকে তাদের কে আমরা ক্লাউড স্টোরেজ সার্ভিস প্রোভাইডার বলে থাকি। কয়েকটি ক্লাউড স্টোরেজ সার্ভিস কোম্পানির নামঃ- Dropbox, Google Drive, Mediafire, Mega, i cloud, Amazon cloud ইত্যাদি ।

ক্লাউড স্টোরেজের ইতিহাস

ক্লাউড স্টোরেজ 1960 সালে JCR Licklider দ্বারা শুরু হয়েছিল । আরপানেটে কাজ করার সময় তিনি এটি তৈরি করেছিলেন। এর পিছনে তার উদ্দেশ্য ছিল যে লোকেরা যে কোনও সময় যে কোনও জায়গা থেকে তাদের ডেটা পেতে পারে। এর জন্য, তিনি 20 টিরও বেশি কম্পিউটার সংযুক্ত করেছিলেন। এইভাবেই ক্লাউড স্টোরেজ প্রথম শুরু হয়েছিল।

২০০৬ সালে অ্যামাজন সর্বপ্রথম AWS S-3 ক্লাউড স্টোরেজ সার্ভিস নামে ইন্টারনেটে বাণিজ্যিকভাবে ক্লাউড স্টোরেজের প্রচলন শুরু করে । এর সাথে, অন্যান্য কোম্পানিগুলি যারা তাদের সাথে AWS S-3 দিয়ে ক্লাউড স্টোরেজ সুবিধা প্রদান করেছিল তারা ছিল ড্রপবক্স , Pinterest , Smugmug ইত্যাদি কোম্পানি ।

ক্লাউড স্টোরেজের প্রকারভেদ

ক্লাউড স্টোরেজ প্রধানত ৪ প্রকার –

  • পারসোনাল ক্লাউড স্টোরেজ
  • পাবলিক ক্লাউড স্টোরেজ
  • প্রাইভেট ক্লাউড স্টোরেজ
  • হাইব্রিড ক্লাউড স্টোরেজ

ক্লাউড স্টোরেজ ব্যবহারের সুবিধা

ক্লাউড স্টোরেজ ব্যবহারের কিছু সুবিধা নিচে দেওয়া হল –

  • ক্লাউড স্টোরেজের মাধ্যমে, আমরা ইন্টারনেটের সাহায্যে বিশ্বের যে কোন জায়গা থেকে এবং যে কোন সময় আমাদের ক্লাউডে সংরক্ষিত ফাইল অ্যাক্সেস করতে পারি।
  • ক্লাউড স্টোরেজে ডাটা সংরক্ষন করলে তা ভাইরাস থেকে সম্পূর্ণ সুরক্ষিত থাকে। তাই আপনার প্রয়োজনীয় ফাইল গুলো ভাইরাসের থেকে রক্ষা করতে ক্লাউডে স্টোর করে রাখতে পারেন।
  • ফাইল হারানোর কোন ভয় নাই । কারণ ক্লাউড স্টোরেজ কোম্পানি গুলো আপনার স্টোর করে রাখা ডাটার আরেকটি কপি ব্যাকআপ হিসাবে রেখে দেয়, যেন যাতে আপনার ডেটা গুলো যে হার্ড ডিস্কে আছে তা কোন কারণবশত নষ্ট হয়ে গেলে পুনরায় যেন ডেটা গুলো আপনাকে দিতে পারে।
  • আপনি যে কোন ব্যাক্তির সাথে আপনার ফাইল গুলো শেয়ার করতে পারবেন । আবার আপনার যদি কোন প্রাইভেট বা গোপনীয় ফাইল থাকে তাহলে সেই গুলো আপনি এখানে সুরক্ষিত এবং নিরাপদ ভাবে রাখতে পারবেন ।
আরও পড়ুনঃ কিভাবে Pendrive Bootable করবেন

ক্লাউড স্টোরেজের অসুবিধা

  • ক্লাউড স্টোরেজের সবচেয়ে বড় অসুবিধা হল ইন্টারনেটের উপর নির্ভরশীলতা, ইন্টারনেট ছাড়া ক্লাউড স্টোরেজের ডেটা ডাউনলোড বা আপলোড বা সম্পাদনা বা শেয়ার করা যাবে না। 
  • ডেটার সুরক্ষা এবং গোপনীয়তা ক্লাউড স্টোরেজের একটি খুব বড় সমস্যা, অনেক সময় ক্লাউড স্টোরেজের ডেটা ফাঁস হয়ে যায়।
  • ক্লাউড স্টোরেজ ব্যয়বহুল।
  • ব্যাকআপ নেওয়ার সময় এটি অনেক ধীর গতিতে কাজ করে।
  • ক্লাউড স্টোরেজে, আপনার ডেটা অন্য ব্যক্তির হাতে থাকে অর্থাৎ ক্লাউড স্টোরেজ প্রদানকারী সংস্থার হাতে আপনার ডেটা থাকে। তারা চাইলে যে কোন সময় আপনার ডেটার অপব্যবহার করতে পারে।

সেরা ফ্রি ক্লাউড স্টোরেজ সার্ভিস

বর্তমানে অনলাইনে অনেক ক্লাউড স্টোরেজ সার্ভিস প্রোভাইডার বা কোম্পানি রয়েছে যারা তাদের কোম্পানির প্রচারের জন্য ব্যবহারকারীদের কয়েক জিবি ফ্রি স্পেস প্রদান করে থাকে । Cloud Storage সিস্টেম টি এতই সুবিধা সম্পন্ন যে, অনেক মানুষ বর্তমানে এই সার্ভিস টি কিনে ব্যবহার করছে। যদিও আমাদের দেশের মানুষ বিভিন্ন কারণে ফ্রি ক্লাউড স্টোরেজ সার্ভিস ব্যবহার করে। তাহলে চলুন কিছু ফ্রি ক্লাউড স্টোরেজ সম্পর্কে জেনে নেয়া যাক

Google Drive

গুগল ড্রাইভ হল গুগল কর্তৃক প্রদত্ত একটি বিনামূল্যের ক্লাউড স্টোরেজ সার্ভিস । এর মাধ্যমে ব্যবহারকারীর পিসি, ট্যাবলেট এবং মোবাইল ডিভাইসগুলিতে সঞ্চিত ফাইল, ফটো এবং আরও অনেক কিছু অটো সিঙ্ক করা যায়। এটিতে আপনারা ফ্রি তে ১৫ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

এছাড়াও আপনার যদি আরও বেশী জায়গার প্রয়োজন হয় তাহলে আপনি এটি কিনেও ব্যবহার করতে পারবেন। আর যদি ফ্রি তে ১৫ জিবি এর চেয়ে বেশী জায়গা ব্যবহার করতে চান তাহলে আরও একটি নতুন Gmail ID ক্রিয়েট করুন। তাহলে আপনি এই নতুন জিমেইল এর মাধ্যমে আপনি আরও ১৫ জিবি ফ্রি স্পেস পেয়ে যাবেন।

Mega.nz

মেগা হল একটি অনলাইন স্টোরেজ এবং হোস্টিং প্ল্যাটফর্ম যা মেগা লিমিটেড অফার করে। মেগা, উইন্ডোজ, ম্যাক এবং লিনাক্স সব প্ল্যাটফর্মে কাজ করে।

মেগা তে আপনারা ফ্রি তে ২০ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন । এছাড়াও এতে রয়েছে ফাইল প্রটেক্টশনের সিস্টেম।

আপনি mobile app এর মাধ্যমেও এতে ফাইল আপলোড করতে পারবেন। আপনি এতে একাধিক ফাইল একসাথে zip ফরম্যাটে ডাউনলোড করতে পারবেন।

Yandex Disk

ইয়ানডেক্স ডিস্ক একটি নির্ভরযোগ্য এবং বিনামূল্যের ক্লাউড স্টোরেজ সার্ভিস প্রোভাইডার। ইয়ানডেক্সে সাইন আপ করার সাথে সাথে আপনি 10 জিবি ফ্রি ক্লাউড স্টোরেজ পেয়ে যাবেন।

আপনি তাদের প্রচারমূলক ক্রিয়াকলাপে অংশগ্রহণ করে আরও অতিরিক্ত 32GB পর্যন্ত ফ্রি স্টোরেজ জিততে পারেন। এটি উইন্ডোজ এবং ম্যাক অপারেটিং সিস্টেম সমর্থন করে।

DropBox

DropBox একটি শক্তিশালী ফ্রি ক্লাউড স্টোরেজ কারণ এর রয়েছে দুর্দান্ত ব্যাক -আপ ফিচার। যেকোনো ধরনের ছোট এবং বড় পাওয়ারপয়েন্ট উপস্থাপনা, ছবি, ভিডিও, এমনকি অন্যান্য বড় CAD ফাইলগুলিও ড্রপবক্সে নিরাপদে রাখা যেতে পারে।

ড্রপবক্স, এর ব্যবহারকারীদের সহজ সিঙ্ক বৈশিষ্ট্য প্রদান করে যা যে কোনো ডিভাইস থেকে ড্রপবক্সে ফাইল এবং নথি অ্যাক্সেস করতে সাহায্য করে।

ড্রপবক্সে আপনারা ফ্রি তে ২ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

One Drive

ওয়ান ড্রাইভ মাইক্রোসফট কোম্পানির একটি ফ্রি ক্লাউড স্টোরেজ সার্ভিস। এটি মাইক্রোসফট অ্যাকাউন্ট ব্যবহারকারীদের জন্য বিনামূল্যে অ্যাক্সেসযোগ্য। আপনি আপনার উইন্ডোজ পিসি বা ম্যাক অপারেটিং সিস্টেমে ফাইল সিঙ্ক করতে OneDrive অ্যাপস ব্যবহার করতে পারেন ।

ওয়ান ড্রাইভে আপনারা ফ্রি তে ৫ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

Mediafire

মিডিয়াফায়ার একটি ফাইল হোস্টিং, ক্লাউড স্টোরেজ এবং সিঙ্ক্রোনাইজেশন পরিষেবা প্রদানকারী কোম্পানি। মিডিয়াফায়ার অন্যতম সেরা বিনামূল্যে ক্লাউড স্টোরেজ প্রোভাইডার। মিডিয়াফায়ারের ইন্টারফেস ইউজারফ্রেন্ডলি, যার ফলে যে কোন ব্যবহারকারী খুব সহজেই এটি ব্যবহার করতে পারবে।

মিডিয়াফায়ারে আপনারা ফ্রি তে ১০ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

IDrive

IDrive ডেটা ব্যাকআপ সেবা প্রদান করে। এই পরিষেবাটি উইন্ডোজ , ডেবিয়ান, আইওএস, অ্যান্ড্রয়েড এবং ম্যাক ব্যবহারকারীদের জন্য উপলব্ধ।

IDrive এ আপনারা ফ্রি তে ৫ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

Amazon Drive

অ্যামাজন ড্রাইভ বা অ্যামাজন ক্লাউড ড্রাইভ অ্যামাজনের একটি ক্লাউড স্টোরেজ অ্যাপ্লিকেশন। এটি ক্লাউড স্টোরেজ, ফাইল শেয়ারিং, ফটো প্রিন্টিং এবং ফাইল ব্যাকআপ প্রদান করে। অ্যামাজন ড্রাইভ স্বয়ংক্রিয়ভাবে আপনার ফোনের ফটো এবং ভিডিও ব্যাক আপ করে।

Amazon Drive এ আপনারা ফ্রি তে ৫ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

iCloud

আইক্লাউড অ্যাপল ইনকর্পোরেটেড দ্বারা পরিচালিত একটি ক্লাউড স্টোরেজ সার্ভিস।

এটি অন্যতম সেরা ক্লাউড স্টোরেজ পরিষেবা যেখানে ব্যবহারকারীরা ক্লাউডে যেকোন ফাইল সংরক্ষণ করতে পারে এবং আইক্লাউড স্বয়ংক্রিয়ভাবে আপনার ডিভাইসে সিঙ্ক হয়ে যাবে। আপনি এই পরিষেবাটি ম্যাক এবং উইন্ডোজ পিসির জন্য ব্যবহার করতে পারবেন।

আইক্লাউডে আপনারা ফ্রি তে ৫ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

Mimedia

বর্তমান বাজারে সেরা ফ্রি ক্লাউড স্টোরেজ প্রদানকারীদের মধ্যে Mimedia অন্যতম । এটি মূলত ক্লাউড ভিত্তিক ব্যাকআপ পরিষেবা হিসাবে কাজ করে, যা আপনাকে আপনার ব্যক্তিগতকৃত ফাইল সংগ্রহ করতে এবং পরিচালনা করতে সহায়তা করে।

Mimedia তে আপনারা ফ্রি তে ১০ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

Mimedia এর ডেস্কটপ অ্যাপটি সহজেই পিসি এবং ম্যাক দ্বারা সমর্থিত এবং এই অ্যাপের মাধ্যমে ক্লাউডে যেকোনো ধরনের কন্টেন্ট আপলোড করতে পারবেন।

koofr

বর্তমানে উপলব্ধ সর্বাধিক সেরা ফ্রি ক্লাউড স্টোরেজগুলির মধ্যে, koofr অন্যতম। Koofr হল একটি ক্লাউড স্টোরেজ সলিউশন যা ড্রপবক্স, অ্যামাজন, গুগল ড্রাইভ, ওয়ানড্রাইভ অ্যাকাউন্টগুলিকে সংযুক্ত করে । এই ফ্রি অনলাইন ফাইল স্টোরেজ অ্যান্ড্রয়েড, আইওএস, উইন্ডোজ, লিনাক্স এবং ম্যাক ওএস -এর জন্য উপলব্ধ।

koofr এ আপনারা ফ্রি তে ১০ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

ব্যবহারকারীরা তাদের মোবাইল ফোন থেকে koofr এর সাহায্যে স্বয়ংক্রিয়ভাবে ফটো এবং ভিডিওর ব্যাকআপ নিতে পারেন।

Sync.com

বর্তমানের সেরা ফ্রি ক্লাউড স্টোরেজগুলির মধ্যে Sync.com একটি। Sync.com হল যেকোনো কম্পিউটার বা মোবাইল ডিভাইস থেকে ফাইল শেয়ার করার জন্য একটি ক্লাউড সার্ভিস। সিঙ্ক গোপনীয় এবং সংবেদনশীল ডেটা সংরক্ষণ এবং শেয়ার করার জন্য একটি আদর্শ মাধ্যম।

সিঙ্ক উইন্ডোজ, ম্যাক, আইওএস এবং অ্যান্ড্রয়েড সমর্থন করতে পারে।

Sync.com এ আপনারা ফ্রি তে ৫ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

pCloud

pCloud হল অন্যতম সেরা ফ্রি ক্লাউড স্টোরেজ অপশন। এটি আপনাকে আপনার ব্যক্তিগত ফাইলগুলিকে সর্বোচ্চ স্তরের এনক্রিপশনের সাথে গোপন রাখতে সাহায্য করে। এর মাধ্যমে আপনি আপনার ফাইলগুলিকে ফর্ম্যাট অনুযায়ী ফিল্টার করতে পারবেন। এই প্ল্যাটফর্মটি আপনাকে আপনার কর্মী, সহযোগী এবং পরিবারের সাথে ফাইল শেয়ার করতে সাহায্য করে।

pCloud এ আপনারা ফ্রি তে ১০ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

Icedrive

আইসড্রাইভ একটি পরবর্তী প্রজন্মের ক্লাউড প্রযুক্তি যা আপনাকে আপনার ক্লাউড রিসোর্সগুলিকে নির্বিঘ্নে নেভিগেট করতে, পরিচালনা করতে এবং আপগ্রেড করতে দেয়। এটি আপনার ফাইলগুলিকে শেয়ার, সংরক্ষন করার জন্য স্থান সরবরাহ করে। এতে রয়েছে Twofish এনক্রিপশনের সুবিধা।

Icedrive এ আপনারা ফ্রি তে ১০ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

blomp

আপনার ভিডিও এবং ফটোগুলি সংরক্ষন করার জন্য আপনি যদি একটি নিরাপদ এবং সহজ মাধ্যম চানফ, তবে ব্লম্প আপনার জন্য আদর্শ ক্লাউড স্টোরেজ । এটি ম্যাক, উইন্ডোজ এবং উবুন্টু লিনাক্স সিস্টেমের যে কোনও ওয়েব ব্রাউজারের মাধ্যমে অ্যাক্সেসযোগ্য।

blomp এ আপনারা ফ্রি তে ২০ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

Box

বক্স একটি ক্লাউড ফাইল ম্যানেজমেন্ট এবং শেয়ারিং সার্ভিস। এই ফ্রি ড্রাইভ স্টোরেজটি উইন্ডোজ, ম্যাকওএস এবং মোবাইল প্ল্যাটফর্মের জন্য উপলব্ধ।

Box এ আপনারা ফ্রি তে ১০ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

JumpShare

Jumpshare হল ফ্রি সেরা ক্লাউড স্টোরেজগুলির মধ্যে একটি, যা আপনাকে বড় আকারের ফাইল পাঠাতে এবং শেয়ার করতে দেয়। এই ফ্রি ক্লাউড সার্ভিস আপনাকে যেকোন কিছু ক্যাপচার এবং শেয়ার করতে সাহায্য করে। জাম্পশেয়ারে যেকোন ফাইল শেয়ার করার জন্য ড্র্যাগ অ্যান্ড ড্রপ সুবিধা রয়েছে। এই ফ্রি ফাইল স্টোরেজ পরিষেবাটি ম্যাকওএস, অ্যান্ড্রয়েড, উইন্ডোজ, আইপ্যাড এবং আইফোনে ব্যবহার করতে পারবেন।

JumpShare এ আপনারা ফ্রি তে ২ জিবি পর্যন্ত ডাটা স্টোর করে রাখতে পারবেন ।

আরও পড়ুনঃ কিভাবে কম্পিউটারের MAC Address বের করবেন

শেষ কথা

আপনি দেখতে পাচ্ছেন যে আপনার দৈনন্দিন স্টোরেজ রুটিনের জন্য একাধিক অপশন রয়েছে, আপনি যে কোনও সময় আপনার প্রয়োজন অনুসারে যেকোন পরিষেবাতে স্যুইচ করতে পারেন। বেশিরভাগ সংস্থার ডেটা স্টোরেজ, গোপনীয়তা এবং গোপনীয়তা রক্ষার জন্য খুব কঠোর পদ্ধতি রয়েছে।

আর্টিকেলটি নিয়ে যে কোন ধরণের প্রশ্ন বা মন্তব্য থাকলে কমেন্ট সেকশনে জানান।

ধন্যবাদ

Share on:

আমি অঞ্জন, এই সাইটটির প্রতিষ্ঠাতা। এই ব্লগে টিপস & ট্রিকস, অনলাইন ইনকাম, কম্পিউটার সমস্যা সমাধান সহ আরো অনেক কিছুর উপর সঠিক ও নির্ভুল তথ্য দেওয়া হয়।

Leave a Comment