ভিএলসি দিয়ে স্ক্রিন রেকর্ড করবেন যেভাবে

আপনি কি জানেন যে ভিএলসি (VLC) Media প্লেয়ারের মাধ্যমে কম্পিউটারের Screen রেকর্ড করা যায়? উইন্ডোজের যত মিডিয়া প্লেয়ারই থাকুক না কেন, ভিএলসি সেগুলোর মধ্যে অন্যতম সেরা একটি সফটওয়্যার। ফাইল ফরম্যাট সাপোর্ট, ব্যবহারের সহজতা, অপশন এবং কনফিগারেশনের দিক বিবেচনা করলে ভিএলসির মত মিডিয়া প্লেয়ার খুব কম রয়েছে। এছাড়াও ভিএলসি বিনামূল্যের একটি ওপেন সোর্স সফটওয়্যার।

আপনি যদি কোন সময় ভিএলসি প্লেয়ার ব্যবহার করে থাকেন, তাহলে আপনি দেখতে পাবেন যে ভিএলসি প্লেয়ার এর মাধ্যমে বিভিন্ন মিডিয়া চালানো ছাড়াও আরও অনেক ধরনের কাজ করা যায় । এই জিনিসগুলির মধ্যে রয়েছে মিডিয়া ফাইল কনভার্ট, ভিডিও চালানো, ডিভিডি এবং ব্লু-রে, অনলাইন ভিডিও স্ট্রিমিং এবং আরও অনেক কিছু।

ভিএলসির কম পরিচিত বৈশিষ্ট্য গুলির মধ্যে একটি হল, মাত্র কয়েক ক্লিকে কম্পিউটারের স্ক্রিন রেকর্ড করার ক্ষমতা। এই বৈশিষ্ট্যটি বিশেষভাবে সহায়ক হয় যখন আপনি আপনার কম্পিউটারে যে কোন কিছু রেকর্ড করতে চান যেমন- আপনার পছন্দের গেমপ্লের ফুটেজ ক্যাপচার অথবা ইউটিউবের জন্য টিউটোরিয়াল ভিডিও বানানোর ক্ষেত্রে ইত্যাদি । কারণ যাই হোক না কেন, ভিএলসি দিয়ে কীভাবে স্ক্রিন রেকর্ড করা যায় তা জানা থাকলে প্রয়োজনের সময় এটি আপনার কাজে আসতে পারে। তাহলে চলুন জেনে নেয়া যাক ভিএলসি দিয়ে স্ক্রিন রেকর্ড করবেন যেভাবে ।

ভিএলসি দিয়ে স্ক্রিন রেকর্ড

নিচের ধাপ গুলো অনুসরন করে আপনি খুব সহজেই ভিএলসি মিডিয়া প্লেয়ার ব্যাবহার করে আপনার কম্পিউটারের স্ক্রিন রেকর্ড করতে পারবেন –

ধাপ-১ঃপ্রথম ধাপে আপনার কম্পিউটারে ভিএলসি মিডিয়া প্লেয়ার টি ওপেন করুন

ধাপ-২ঃ দ্বিতীয় ধাপে আপনাদের ভিএলসি মিডিয়া প্লেয়ারের Advanced Controls অপশন টি এনাবল করতে হবে । Advanced Controls অপশন টি এনাবল করার জন্য ভিএলসি প্লেয়ারের “ভিউ” ট্যাবে ক্লিক করুন এবং Advanced Controls অপশনটির উপরে ক্লিক করুন। ক্লিক করার সাথে সাথে Advanced Controls অপশনটি এনাবল হয়ে যাবে এবং সেই সাথে আপনি ভিএলসি প্লেয়ারে কিছু অতিরিক্ত মেনু দেখতে পারবেন।

ধাপ-৩ঃ তৃতীয় ধাপে ভিএলসি প্লেয়ারের মিডিয়া (Media) ট্যাবে ক্লিক করে Open Capture Device অপশনে ক্লিক করুন ।

ধাপ-৪ঃ এরপর স্ক্রিনে Open Media নামে একটি ডায়ালগ বক্স ওপেন হবে । এখানে, ক্যাপচার মোডের পাশের ড্রপ-ডাউন মেনু থেকে “ডেস্কটপ” নির্বাচন করুন, আপনার প্রয়োজন মত ফ্রেম রেট (যেমন 24, 30, বা 60 fps) লিখুন তারপর স্ক্রিনের ডান পাশে নিচের দিকে “প্লে” ড্রপ-ডাউন এর অধীনে প্রদর্শিত Convert অপশনে ক্লিক করুন ।

ধাপ-৫ঃ এরপর আপনার সামনে Convert নামে একটি উইন্ডো ওপেন হবে । এই উইন্ডোর কনভার্ট অপশনে ক্লিকে করে প্রোফাইল সেকশন থেকে ভিডিও – H.264 + MP3 (MP4) সিলেক্ট করুন। এরপর ফাইলটি আপনি আপনার কম্পিউটারের কোথায় সংরক্ষন করবেন সেই জায়গাটি নির্বাচন করে দেয়ার জন্য Destination File এর ডান পাশে থাকা ব্রাউজ বোতামে ক্লিক করুন। এরপর আপনি রেকর্ডিং ফাইল টি কোথায় সংরক্ষণ করবেন সেই ফোল্ডার টি নির্বাচন করুন, File Name অপশনে আপনি যে নামে ফাইল টি সেভ করতে চান সেই নাম দিন এবং সেভ বাটনে ক্লিক করুন ।

ধাপ-৬ঃ এরপর স্টার্ট বাটনে ক্লিক করুন ।

ধাপ-৭ঃ উপরের ধাপ গুলো সঠিকভাবে সম্পন্ন করার পর আপনি ভিএলসি প্লেয়ার স্ক্রিনের নিচে বাম পাশে একটি লাল রঙের রেকর্ডিং বাটন দেখতে পাবেন। এই লাল বাটনে ক্লিক করার সাথে সাথে স্ক্রিন রেকর্ডিং স্টার্ট হবে।

ধাপ-৮ঃ রেকর্ডিং শেষ হলে স্টপ বোতামে ক্লিক করে রেকর্ডিং বন্ধ করে দিন।

ধাপ-৯ঃ রেকর্ডিং বন্ধ করার সাথে সাথে ফাইলটি আপনার পূর্বে নির্বাচন করে দেওয়া ফোল্ডারে স্বয়ংক্রিয়ভাবে সেভ হয়ে যাবে।

শেষ কথা

ভিএলসি একটি খুব সাধারন স্ক্রিন রেকর্ডার । এতে আপনি ওরিজিনাল স্ক্রিন রেকর্ডার সফটওয়্যারের মত ফিচার পাবেন না। ভিএলসি স্ক্রিন রেকর্ডারের সবচেয়ে খারাপ দিক হল এটি শব্দ রেকর্ড করতে পারে না। তাই আসল স্ক্রিন রেকর্ডারের সাথে ভিএলসি স্ক্রিন রেকর্ডারের তুলনা না করাই ভালো।

বিডিটেকটিউনার

Share on:

আমি অঞ্জন, এই সাইটটির প্রতিষ্ঠাতা। এই ব্লগে টিপস & ট্রিকস, অনলাইন ইনকাম, কম্পিউটার সমস্যা সমাধান সহ আরো অনেক কিছুর উপর সঠিক ও নির্ভুল তথ্য দেওয়া হয়।

Leave a Comment